এ বি ডি ভিলিয়ার্স আন্তর্জাতিক টি-টুয়েন্টি তে ফেরার জন্য অপেক্ষায় ছিলেন

0
1582

দক্ষিণ আফ্রিকা টি-টোয়েন্টির অধিনায়ক কুইন্টন ডি কক নিশ্চিত করে বলেছিলেন যে, এ বি ডি ভিলিয়ার্স এই বছরের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের মধ্য দিয়ে সম্ভাব্য আন্তর্জাতিক প্রত্যাবর্তনের অপেক্ষায় ছিলেন, কিন্তু তা আনুষ্ঠানিকভাবে এই সপ্তাহের শুরুতে টি-টুয়েন্টি বিশ্বকাপ ২০২১ পর্যন্ত স্থগিত করা হয়েছে। ডি ককের এই বক্তব্য গত বছরের ডিসেম্বরে দেওয়া ফাফ ডু প্লেসিসের বক্তব্যের সাথে সামঞ্জস্যপূর্ণ। তৎকালীন অধিনায়ক ফাফ ডু প্লেসিস এবং সদ্য নিয়োগপ্রাপ্ত প্রধান কোচ মার্ক বাউচার বলেছিলেন যে, ডি ভিলিয়ার্সকে দক্ষিণ আফ্রিকার টি-টোয়েন্টি দলে ফিরিয়ে আনার চেষ্টা চলছে।

স্টার স্পোর্টস এর একটা শো তে তিনি বলেন, এ বি ডি ভিলিয়ার্সের মত খেলোয়াড়কে যে কোন দলই দলে নিতে চাইবে। তিনি যদি ফিট থাকেন তো ক্রিকেটে ফিরতে কোন সমস্যা নেই। আমি সত্যিই আনন্দিত হবো যদি তিনি দলে ফিরেন। আমরা তাকে এতদিন চাপ দিয়ে আসছিলাম দলে ফেরার জন্য এখন দেখার বিষয় টি-টুয়েন্টি বিশ্বকাপ কখন আয়োজিত হয়।


ডি ভিলিয়ার্স নিজেই এই বছরের শুরুতে বিগ ব্যাশ লিগ চলাকালীন টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের জন্য ফিরে আসার আগ্রহ দেখিয়েছিলেন। আবারো টি-টুয়েন্টির ক্যাপ মাথায় তোলার ইচ্ছে প্রকাশ করেছিলেন।

এই বিষয়টি বাস্তবতায় রূপ নেবার আগে বেশ কিছু বিষয় বিবেচনার আছে। ডি ভিলিয়ার্স জানুয়ারিতে ব্রিসবেন হিটের হয়েট  বিগ ব্যাশে অভিষেকের পরে সাংবাদিকদের বলেন।” আমি বাউচ, গ্রাম স্মিথ এবং ফাফের সাথে কথা বলেছি। আমরা সবাই এই বিষয়টি বাস্তবতায় রূপদানে বিশ্বাসী, এখনো বেশ খানিকটা পথ পাড়ি দেবার বাকি আছে। সামনে আইপিএল আসছে, আমার তখনও ফর্মে ধরে রাখতে হবে। আমি আমার নামের টি-টুয়েন্টির টুপি আবার পরার কথা ভাবছি এবং আশা করি সবকিছু কার্যকর হয়ে যাবে।”

২০১৮ সালের মে মাসে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসর গ্রহণের পর এটি এ বি ডি ভিলিয়ার্সের প্রথম কোন সুনির্দিষ্ট বক্তব্য, তার অবসরের পর থেকেই তার প্রত্যাবর্তনের নিয়মিত জল্পনা কল্পনা শুরু হয়েছিল, বিশেষত গত বছরের ওয়ানডে বিশ্বকাপের সময় যখন প্রত্যাবর্তনের শেষ মুহুর্তের প্রস্তাব দক্ষিণ আফ্রিকার ক্রিকেট পরিচালনা কমিটি প্রত্যাখ্যান করে ছিল।

ডি ভিলিয়ার্স সাউথ আফ্রিকার ক্রিকেটে ফেরার ঘোষণা দেওয়ার পর তার সাবেক সতীর্থরা খুব উদ্বেলিত। তিনি গত সপ্তাহে দক্ষিণ আফ্রিকার পরীক্ষামূলক 3TC ফর্ম্যাটে বিজয়ী দলের অধিনায়ক ছিলেন। যা জানুয়ারিতে অনুষ্ঠিত বিগব্যাশের পর থেকে তার প্রথম কোন ম্যাচ ছিল। ২০২১ সালের শেষদিকে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপটি নির্ধারিত হওয়ার পরে, ডি ভিলিয়ার্সের ফেরার পথটি দীর্ঘতর হয়ে উঠতে পারে।