জাদু দেখালেন ত্যাগি ও মুস্তাফিজ, অবিশ্বাস্য জয় রয়্যালসের

0
2897

রাজস্থান রয়্যালসের দেওয়া ১৮৬ রানের লক্ষ্যে ব্যাটিংয়ে নেমে সহজ জয়ের পথেই এগিয়ে যাচ্ছিলো পাঞ্জাব কিংস, শেষ ১২ বলে তাদের প্রয়োজন ছিল মাত্র ৮ রান। ৮ উইকেট হাতে রেখেও অবিশ্বাস্য এই সমীকরণ মেলাতে পারেনি পাঞ্জাব, মুস্তাফিজুর রহমান ও কার্তিক ত্যাগির দুর্দান্ত বোলিংয়ে ২ রানের জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে রাজস্থান।

১৯ তম ওভারে বোলিংয়ে আসেন মুস্তাফিজুর রহমান, উইকেটে বিধ্বংসী নিকোলাস পুরান ও এইডেন মারক্রাম। ফিজের করা ওভারের প্রথম ৩ বল থেকে মোটে ১ রানই শুধু নিতে পারেন পুরান, শেষ ৩ বল থেকে আসে আরও ৩ রান।
শেষ ওভারে জয়ের জন্য দরকার ৪ রান, কার্তিক ত্যাগির ম্যাজিক ওভারে প্রথম ২ বল থেকে ১ রান নিতে পারেন মারক্রাম। শেষ ৪ বলে কোন রানই নিতে পারেননি নিকোলাস পুরান, দিপক হুদা, ফাবিয়েন অ্যালেনরা, রাজস্থান ম্যাচ জিতে নেয় ২ রানের ব্যবধানে।

রাজস্থানের জয়ের নায়ক কার্তিক ত্যাগি ৪ ওভারে ২৯ রান দিয়ে নেন ২ উইকেট, দুর্দান্ত বোলিং করেও ফিল্ডারদের ব্যর্থতায় উইকেট শূন্য ছিলেন ফিজ, ৪ ওভারে তিনি দিয়েছেন ৩০ রান।

রান তাড়া করতে নেমে দেখেশুনে শুরু করেন পাঞ্জাবের দুই ওপেনার লোকেশ রাহুল ও মায়াঙ্ক আগারওয়াল, এদিন অবশ্য শুরু থেকেই ভাগ্যের ছোঁয়া পেয়েছেন পাঞ্জাব অধিনায়ক। চেতন সাকারিয়ার করা ইনিংসের দ্বিতীয় ওভারেই এভিন লুইসের হাতে জীবন পান রাহুল, জীবন পেয়ে বিধ্বংসী হয় তার ব্যাট।

২৯ রানে আবারও জীবন পান রাহুল, এবার দুর্ভাগা বোলার ক্রিস মরিস, ক্যাচ ছাড়েন রিয়ান পরাগ। পাওয়ার প্লেতে আরও একবার জীবন পান রাহুল, এবার উইকেট বঞ্চিত মুস্তাফিজুর রহমান, শর্ট থার্ডম্যানে তার ক্যাচ ছাড়েন চেতন সাকারিয়া।
৪৯ রান করা লোকেশ রাহুলকে ফিরিয়ে ১২০ রানের জুটি ভাঙেন সাকারিয়া, ফিফটি পূর্ণ করা মায়াঙ্ক আগারওয়ালকে ফেরান রাহুল তেওয়াতিয়া, তার ব্যাট থেকে আসে ৬৭ রানের ইনিংস।

এর আগে টসে হেরে ব্যাট করা রাজস্থানকে দুর্দান্ত শুরু এনে দেন এভিন লুইস ও যশ্বসী জয়শোয়াল, যাওয়ার প্লেতে লুইসকে হারালেও ৫৭ রান তোলে দলটি। ৩৬ রান করে আউট হন লুইস, অধিনায়ক সাঞ্জু স্যামসন ফিরেন ৪ রান করেই, লিয়াম লিভিংস্টোনের ব্যাট থেকে আসে ১৭ বলে ২৫ রান।
রাজস্থানকে বড় স্কোরের দিকে নেন পাঁচে নামা মাহিপাল লামরোর, মাত্র ১৭ বলে ৪ ছক্কায় করেন ৪৩ রান, জয়সোয়ালের ব্যাট থেকে আসে ৪৯ রানের ইনিংস। তবে শেষের ব্যর্থতায় ২০০ স্কোর গড়া হয়নি রাজস্থানের, শেষ ৪ ওভারে ২০ রানে ৫ উইকেট হারিয়ে ১৮৫ তে গুটিয়ে যায় দলটি।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

রাজস্থান রয়্যালস ;- ১৮৫, ২০ ওভার; (যশ্বসী জয়সোয়াল ৪৯, মহিপাল লামরোর ৪৩, এভিন লুইস ৩৬, লিয়াম লিভিংস্টোন ২৫, আর্শদিপ সিং ৫/৩২, হারপ্রিত ব্রার ১/১৭)।
পাঞ্জাব কিংস;- ১৮৩/৪, ২০ ওভার; (মায়াঙ্ক আগারওয়াল ৬৭, লোকেশ রাহুল ৪৯, নিকোলাস পুরান ৩২, এইডেন মারক্রাম ২৬*, কার্তিক ত্যাগি ২/২৯, রাহুল তেওয়াতিয়া ১/২৩, চেতন সাকারিয়া ১/৩১)।
ম্যাচ সেরাঃ কার্তিক ত্যাগি।