বাবর আজম সাদা বলের ক্রিকেটে ‘রিজার্ভ ডে’ চাইছেন 

0
1059

পাকিস্তানের চলমান ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরে এখন পর্যন্ত সবচেয়ে বেশি দাপট ছিলো বৃষ্টির। চার ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজের তিনটি ম্যাচই গেছে বৃষ্টির পেটে। ফলে দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টিতে পাওয়া একমাত্র জয়েই সিরিজের শিরোপা গেছে পাকিস্তানের ঘরে। তবে এভাবে সিরিজের বেশিরভাগ ম্যাচ পন্ড হওয়ায় বেশ হতাশ বাবর আজম।

আসছে অক্টোবরে সংযুক্ত আরব আমিরাতে বসছে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের এবারের আসর। তাই আসন্ন সেই বিশ্বকাপের আগে শক্তিশালী ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে নিজেদের ঝালিয়ে নিতে চেয়েছিল বাবর আজমরা। তবে টি-টোয়েন্টিই পরিত্যক্ত হয়ে যাওয়ায়, তা আর হয়ে উঠেনি।

জ্যামাইকার সাবিনা পার্কে প্রথম টেস্ট মাঠে নামার আগে বুধবার এক ভার্চুয়াল কনফারেন্সে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে এ প্রসঙ্গে বাবর আজম বলেন,

“যখনই আপনি ওয়েস্ট ইন্ডিজে খেলতে আসেন, এই সুন্দর অঞ্চলের বিস্তর ঐতিহ্য এবং ইতিহাসের কারণে আপনার সেরা ক্রিকেটটা খেলতে চান। এই পটভূমিতে, টি -টোয়েন্টি সিরিজে আবহাওয়ার আধিপত্য দেখাটা হতাশাজনক ছিল। টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের প্রস্তুতির অংশ হিসেবে আমরা ওয়েস্ট ইন্ডিজের শক্তিশালী দলের বিরুদ্ধে আমাদের খেলোয়াড়দের সর্বোচ্চ সুযোগ দিতে চেয়েছিলাম কিন্তু দুর্ভাগ্যবশত বৃষ্টির কারণে সিরিজটি খারাপভাবে প্রভাবিত হয়েছে।”

তাই তো বৃষ্টি থেকে রক্ষা পেতে নীতি নির্ধারকদের বিকল্প কোনো পন্থা নিয়ে ভাবার সময় এসেছে বলে মনে করছেন পাকিস্তান অধিনায়ক বাবর আজম। সেক্ষেত্রে ‘রিজার্ভ ডে’ একটি বিকল্প হতে পারে বলে পরামর্শও দিয়েছেন সময়ের অন্যতম সেরা ব্যাটার।

“আবহাওয়া কেউ নিয়ন্ত্রণ করতে পারে না, কিন্তু আমি মনে করি ক্রিকেট যাতে আবহাওয়া দ্বারা প্রভাবিত না হয়, তা নিশ্চিত করার জন্য বিকল্পগুলো নিয়ে ভাবা সময় এসে গেছে। হয়তো প্রতিটি সাদা বলের ম্যাচে ‘রিজার্ভ ডে’ যোগ করা একটি বিকল্প হতে পারে। আমি জানি না, কিন্তু আমি মনে করি আবহাওয়ার কারণে ক্রিকেটের সর্বনিম্ন ক্ষতি নিশ্চিত করার জন্য আলোচনা হওয়া দরকার।

উল্লেখ্য, আজ থেকে শুরু হতে যাওয়া দুই ম্যাচ সিরিজের প্রথম টেস্টের প্রথম দিনেও আবহাওয়ার পূর্বাভাস অনুযায়ী রয়েছে ভারী বৃষ্টিপাতের জোর সম্ভাবনা।