বাবর কে টপকে যাবেন ফকর জামান!

0
475

পাকিস্তানের ওপেনার ফখর জামান তার সতীর্থ বাবর আজম এর র‌্যাঙ্কিং কাছাকাছি চলে এসেছে। যার কারনে এই দুই ব্যটারের মধ্যে দারুন এক প্রতিযোগিতা দেখা যাচ্ছে। সাম্প্রতি এমআরএফ টায়ার্স আইসিসি ওডিআই ব্যাটিং র‌্যাঙ্কিং এ ফকর দারুন উন্নতি করেছেন।

ফকর জামান ঘরের মাঠে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে পাঁচ ম্যাচের সিরিজে দারুন পারর্ফম করেছেন। পর পর দুই ম্যাচে দারুন দুটি শতক তুলে নিয়েছেন।

রাওয়ালপিন্ডিতে সিরিজের উদ্বোধনী ম্যাচে এই বাঁ-হাতি ১১৭ রান করেছিলেন এবং তারপরের ম্যাচে একই ভেন্যুতে দ্বিতীয় ম্যাচে দুর্দান্ত ১৮০* রান করেন। সর্বশেষ র‌্যাঙ্কিং আপডেটে বাবরের পরে তিনি আট ধাপ লাফ দিয়ে দ্বিতীয় স্থানে উঠে এসেছেন।

ফখর জামান এবছর তিনটি ওডিআই সেঞ্চুরি করেছেন এবং ক্যারিয়ার-সেরা ৭৮৪ রেটিং পয়েন্ট অর্জন করেছেন এবং ১০৩ রেটিং পয়েন্ট পিছিয়ে থাকা সত্ত্বেও এখন তার অধিনায়কের নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী।

এর মানে এই বছরের শেষের দিকে আইসিসি ক্রিকেট বিশ্বকাপের আগে সর্বশেষ ওডিআই ব্যাটিং চার্টের শীর্ষ পাঁচে পাকিস্তানের এখন তিনজন খেলোয়াড় রয়েছে, ইমাম-উল-হক আর তার দুই সতীর্থ। দক্ষিণ আফ্রিকার রাসি ভ্যান ডার ডুসেন এবং ভারতের শুভমান গিল এর পর ইমাম পঞ্চম স্থানে রয়েছেন।

নিউজিল্যান্ডের খেলোয়াড়রা যে খারাপ পারর্ফম করেছেন এমন না। টম ল্যাথাম এবং ড্যারেল মিচেল পাকিস্তানে সিরিজে বেশ ভালো খেলেছেন।

সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচে ল্যাথাম ৯৮ রান করেন এবং তিন ধাপ এগিয়ে ২৯ তম স্থানে উঠে আসেন, অন্যদিকে মিচেল দুর্দান্ত ১২৯ রান করে ওডিআই ব্যাটিং র‌্যাঙ্কিংয়ে ১০০ থেকে ৫৭ তম স্থানে উঠে আসেন।

বোলারদের ওডিআই র‌্যাঙ্কিং এ সামান্য পরিবর্তন এসেছে শীর্ষ ১০-এর মধ্যে সবার উপরে ৭০৫ রেটিং পয়েন্ট নিয়ে অস্ট্রেলিয়ান জশ হ্যাজলউড রয়েছেন। ওমানের অভিজ্ঞ অধিনায়ক জিশান মাকসুদ মুলপানিতে আরব আমিরাতের বিপক্ষে অসাধারণ অলরাউন্ডিং পারফরম্যান্স করেন। বল হাতে চার উইকেটের পরে ব্যাট হাতে ৪০ রান করেন। ওয়ানডে অলরাউন্ডারদের তালিকায় তিনি তিন ধাপ এগিয়ে পঞ্চম স্থানে উঠে এসেছেন।

 

গলে আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে শ্রীলঙ্কা দুর্দান্ত সিরিজ জয় করার পরে শ্রীলঙ্কার বেশ কিছু খেলোয়াড় সর্বশেষ টেস্ট র‌্যাঙ্কিংয়ে কিছু জায়গা করে নিয়েছেন।

দ্বিতীয় টেস্টে বাঁহাতি স্পিনার প্রভাত জয়সুরিয়ার র‌্যাঙ্কিংয়ে বড় পরিবর্তন আসে। দ্বিতীয় টেস্টে সাত উইকেট শিকারের পর এই ৩১ বছর বয়সী ছয় ধাপ উন্নতি করে ১৩ তম স্থানে পৌঁছেছেন।

সতীর্থ রমেশ মেন্ডিস একই টেস্ট থেকে ছয় উইকেট তুলে নেন যার ফলে ১০ ধাপ এগিয়ে ২২ তম স্থানে চলে উঠে এসেছেন। শ্রীলঙ্কার অভিজ্ঞ ব্যাটিং জুটি অ্যাঞ্জেলো ম্যাথিউস (এক স্থান উপরে উঠে ২২ তম) এবং কুসল মেন্ডিস (তিন স্থান উপরে উঠে ৩৯ তম) তিন অংকের স্কোর করার পর ব্যটিং র‌্যাঙ্কিংয়ে উন্নতি করেন।